ই-পেপার ফটোগ্যালারি আর্কাইভ  মঙ্গলবার ● ৯ আগস্ট ২০২২ ● ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯
ই-পেপার  মঙ্গলবার ● ৯ আগস্ট ২০২২
শিরোনাম: লঞ্চের ধাক্কায় বাল্কহেড ডুবে ২ শ্রমিক নিখোঁজ       জ্বালানিকে সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দিচ্ছে সরকার: প্রধানমন্ত্রী       বিদ্যুৎ-জ্বালানি তেল-গ্যাস ব্যবহারে সাশ্রয়ী হওয়ার আহ্বান রাষ্ট্রপতির        পবিত্র আশুরা আজ        ডোনাল্ড ট্রাম্পের বাড়িতে এফবিআই’র অভিযান       ৬ ব্যাংকের ট্রেজারি বিভাগের বিরুদ্ধে ব্যবস্থার নির্দেশ       জ্বালানির মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে বিএনপির দুইদিনের কর্মসূচি      
কাজে ফিরলেন সিওমেক’র চিকিৎসকরা
সিলেট ব্যুরো
Published : Thursday, 4 August, 2022 at 4:48 PM, Update: 04.08.2022 4:52:12 PM

বহিরাগতদের হামলায় দুই ছাত্র আহতের ঘটনায় চলমান আন্দোলন স্থগিত করেছেন সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের (সিওমেক) শিক্ষার্থী ও ইন্টার্ন চিকিৎসকরা।

বৃহস্পতিবার (০৪ আগস্ট) মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত সভা শেষে আন্দোলন প্রত্যাহারের ঘোষণা দেন তারা।

আগামী এক সপ্তাহের জন্য আন্দোলন স্থগিত ঘোষণা করেন ইন্টার্ন চিকিৎসক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মুন্তাকিম চৌধুরী।

মুন্তাকিম বলেন, হামলার ঘটনার প্রধান আসামি দিব্যকে বুধবার (০৩ আগস্ট) রাতে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তারই পরিপ্রেক্ষিতে আজকের বৈঠকে উপাচার্য-পরিচালকসহ সকলেই কর্মসূচি প্রত্যাহার করার দাবি করেন। তাদের দাবির প্রতি শ্রদ্ধা রেখে আমরা চলমান আন্দোলন স্থগিত করেছি।

আন্দোলনে নেতৃত্বদানকারী ইন্টার্ন চিকিৎসকরা বলেন, মামলার প্রধান আসামি গ্রেফতার হলেও বাকিরা এখনও ধরাছোঁয়ার বাইরে। আমরা আগামী এক সপ্তাহ সময় বেধে দিয়ে চলমান আন্দোলন স্থগিত করছি। অন্দোলন স্থগিতের পর বেলা ১১টা ৩৫ মিনিট থেকে তারা কাজে যোগ দেন।

সিলেট মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য (ভিসি) ডা. মোর্শেদ আহমদ চৌধুরী বলেন, ইন্টার্ন চিকিৎসক ও ছাত্ররা তাদের নিরাপত্তা নিশ্চিতের ওপর বেশি তাগিদ দিয়েছেন। এছাড়া হামলায় জড়িত অন্যান্য আসামিদের গ্রেফতারে দাবি তোলেন। তাদের দাবির প্রেক্ষিতে স্বাস্থ্য ও শিক্ষার ডিজি আসামিদের গ্রেফতারে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে আলাপ করবেন বলে তাদের আশ্বস্ত করেন। এতে তারা আন্দোলন স্থগিত করে কাজে ফেরেন ইন্টার্ন চিকিৎসকরা। শিক্ষার্থীরাও ক্লাসে ফিরেছেন।

তিনি আরও বলেন, অধ্যক্ষ থাকাকালীন নিরাপত্তার বিষয়টি প্রাধান্য দিয়ে ক্যাম্পাসের পেছনের দিকে সীমানা প্রাচীর করেছিলাম। তাছাড়া বহিরাগতরা খেলতে এসে মাঠের দখল নেন। এনিয়ে ছাত্রদের সঙ্গে অনেক সময় মারামারি হতো। বিশেষ করে ছাত্রী ও নার্সিং হোস্টেলের সামনে ছাত্রীদের উত্যক্ত করার অভিযোগ রয়েছে। আর ক্যাম্পাস অভ্যন্তরে ঢুকে বহিরাগতদের অনেকে মাদক সেবন করে। যে কারণে নিরাপত্তায় পুলিশ মোতায়েনের বিষয়ে জোর দেওয়া হয়েছে।

বৈঠক শেষে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সিলেট বিভাগীয় পরিচালক ডা. হিমাংশু লাল রায় বলেন, আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের দাবিগুলো পূরণের আশ্বাসের পরিপ্রেক্ষিতে তারা এক সপ্তাহের জন্য আন্দোলন স্থগিত রেখে কাজে যোগ দিয়েছেন। তাদের দাবিগুলোর মধ্যে হামলার ঘটনায় দায়েরকৃত মামলার আসামিদের গ্রেফতার করা। এরইমধ্যে প্রধান আসামিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। অন্যান্য আসামিদের গ্রেফতারের আশ্বাসে তারা আন্দোলন স্থগিত করে ইন্টার্ন চিকিৎসকরা কাজে এবং শিক্ষার্থীরা ক্লাসে ফিরেছেন।

ইন্টার্ন চিকিৎসকদের সঙ্গে বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য শিক্ষার মহাপরিচালক (ডিজি) অধ্যাপক ডা. এ এইচ এম এনায়েত হোসেন, ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মাহবুবুর রহমান ভুঁইয়া, ওসমানী মেডিক্যাল কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ডা. মো. ময়নুল হক, মেডিক্যাল কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক নাজমুল হাসান, ইন্টার্ন চিকিৎসক পরিষদের সাধারণ সম্পাদকসহ অন্যান্য প্রতিনিধিরা।

উল্লেখ্য, পূর্ব বিরোধের জের ধরে গত সোমবার (০১ আগস্ট) রাতে ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ ক্যাম্পাসে ঢুকে শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা করেন বহিরাগতরা। এ ঘটনায় সেদিন রাত ১০টার দিকে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেন শিক্ষার্থীরা। পরদিন মঙ্গলবার এ ঘটনায় দুটি মামলা দায়ের করে মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতাল প্রশাসন। ঘটনার রাতে পুলিশ দুজনকে গ্রেফতার দেখালেও আন্দোলন থেকে সরেননি শিক্ষার্থীরা। পরদিন মঙ্গলবার (২ আগস্ট) মেডিক্যাল কলেজে ছাত্র ও ইন্টার্ন চিকিৎসকদের নিয়ে বৈঠকে বসেন আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ও পুলিশ প্রশাসন। বৈঠকে তাদের সব দাবি পূরণে আশ্বস্ত করলেও আন্দোলন অব্যাহত রাখা হয়।

এ অবস্থায় চিকিৎসা সেবা বন্ধ রেখে ছাত্রদের সঙ্গে আন্দোলনে চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দেয় ইন্টার্ন চিকিৎসক পরিষদ। কেবল জরুরি বিভাগ ব্যতীত সকল বিভাগে সেবা বন্ধ রেখে আন্দোলন চলে। বুধবার (৩ আগস্ট) বেলা দেড়টার দিকে ফের হাসপাতালের সামনের সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেন শিক্ষার্থী ও ইন্টার্ন চিকিৎসকরা। ওই বিক্ষোভে সামিল হয় মিডলেভেল চিকিৎসক পরিষদও। ওইদিন বেলা আড়াইটায় তারা আল্টিমেটাম দেন বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার মধ্যে আসামিদের গ্রেফতার না করলে হাসপাতালের সব সেবা বন্ধ করে দেবেন।

আজকালের খবর/বিএস 


সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
সম্পাদকমণ্ডলীর সভাপতি : গোলাম মোস্তফা || সম্পাদক : ফারুক আহমেদ তালুকদার
সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : হাউস নং ৩৯ (৫ম তলা), রোড নং ১৭/এ, ব্লক: ই, বনানী, ঢাকা-১২১৩।
ফোন: +৮৮-০২-৪৮৮১১৮৩১-৪, বিজ্ঞাপন : ০১৭০৯৯৯৭৪৯৯, সার্কুলেশন : ০১৭০৯৯৯৭৪৯৮
ই-মেইল : বার্তা বিভাগ- [email protected] বিজ্ঞাপন- [email protected]
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক আজকালের খবর
Web : www.ajkalerkhobor.net, www.ajkalerkhobor.com